৫ লাখ শ্রমিক নিতে আগ্রহী সৌদি আরব

82

বাংলাদেশ থেকে আরও পাঁচ লাখ শ্রমিক নেওয়ার আগ্রহ প্রকাশ করেছে সৌদি আরব। দেশটির শ্রমমন্ত্রী মুফরেজ বিন সাদ আল হাকবানি এ সম্পর্কে বলেন, ‘আমরা বাংলাদেশ থেকে আরও পাঁচ লাখ জনশক্তি নিতে আগ্রহী।’

গতকাল রোববার রাতে রয়্যাল কনফারেন্স প্যালেসে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে এক সৌজন্য সাক্ষাতে এসে এই আগ্রহের কথা জানান সৌদি শ্রমমন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম বৈঠকের পর এ ব্যাপারে সাংবাদিকদের অবহিত করেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাদশাহ সালমান বিন আবদুল আজিজ আল সৌদের আমন্ত্রণে পাঁচ দিনের সরকারি সফরে সৌদি আরব গেছেন।

সৌদি মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশি শ্রমিকেরা এখানে সুনামের সঙ্গে কর্মরত। এ ছাড়া প্রায় ৪২ হাজার নারী শ্রমিক গৃহকর্মে নিয়োজিত রয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী এবং সৌদি শ্রমমন্ত্রী জনশক্তি নিয়োগের ক্ষেত্রে ব্যয় সংকোচনের জন্য মধ্যস্বত্বভোগীদের দৌরাত্ম্য বন্ধে একমত হন। শ্রমমন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশ থেকে শ্রমিক ছাড়াও চিকিৎসক, শিক্ষক ও প্রকৌশলীদের নিয়োগ উন্মুক্ত করে দেওয়ার লক্ষ্যও আমাদের রয়েছে।’

সৌদি আরবে নারী গৃহকর্মী নিয়োগের বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, তাঁর সরকার এসব গৃহকর্মীর স্বল্পকালীন প্রশিক্ষণের পরই বিদেশে পাঠানোর উদ্যোগ নিচ্ছে এবং এই প্রশিক্ষণের মেয়াদ ভবিষ্যতে আরও বাড়ানো হতে পারে। অনলাইন রেজিস্ট্রেশনের মাধ্যমে নিয়োগপ্রক্রিয়া সহজতর করার বিষয়েও প্রধানমন্ত্রী তাঁর সরকারের গৃহীত পদক্ষেপের তথ্য এ সময় তুলে ধরেন।

জনশক্তি নিয়োগের ক্ষেত্রে সৌদি শ্রমমন্ত্রীকে কড়াকড়ি আরোপের বিষয়ে গুরুত্বারোপ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, কোনো দালালশ্রেণি যেন এই প্রক্রিয়ায় ঢুকতে না পারে, সে বিষয়টি খেয়াল রাখবেন। এর উত্তরে মুফরেজ বলেন, ‘শ্রমিকদের সুরক্ষা দেওয়া আমাদের কর্তব্যের মধ্যেই পড়ে।’

শেয়ার করুন :
Follow Facebook

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন:

Loading Facebook Comments ...