বাচ্চাকে নিরামিষ খাওয়ালে জেল হবে বাবা-মায়েদের

31
bdtruenews24.com

যদি সাংসদ এলভিরা স্যাভিনোর প্রস্তাব পাশ হয়, তাহলে ইতালিতে বাচ্চাদের জোর করে নিরামিষ খাবার খাওয়ালে বড় শাস্তি জুটতে চলেছে অভিভাবকদের কপালে। জানা গিয়েছে, আইনানুযায়ী সর্বোচ্চ চার বছরের জেল হতে পারে বাবা-মায়েদের। কনজারভেটিভ ফোরসা ইতালিয়া পার্টির সাংসদ এলভিরা স্যাভিনো আইনি প্রস্তাব পশ করেছেন, যাতে বলা হয়েছে, শিশুদের বৃদ্ধির জন্য উপযুক্ত নয় বা এমন খাবার যাতে বেশি পুষ্টির ভারসাম্য নেই, তা জোর করে বাচ্চাকে খাওয়ালে সোজা হাজতে যেতে হবে।

স্যাভিনো জানিয়েছেন, তিনি নিরামিষাশীদের বিরুদ্ধে নন। তবে কোনও অভিভাবক যদি জোর করে বাচ্চার ইচ্ছার বিরুদ্ধে গিয়ে তার ডায়েট নির্ধারণ করে দেন যার কোনও বৈজ্ঞানিক ও স্বাস্থ্যগত ভিত্তি নেই, তাহলে তা অন্যায়।  তাঁর যুক্তি, শিশুদের বেড়ে ওঠার ক্ষেত্রে পুষ্টিকর খাবারের প্রয়োজন। শুধুমাত্র নিরামিষ খাবারে তা পাওয়া সম্ভব নয়। আমিষ খেলে মাংস, মাছ, ডিম থেকে খুব সহজেই নানা পুষ্টিগুণ পেতে পারে শিশুরা। ফলে তা বন্ধ করে দেওয়া অন্যায়।

আইনের খসড়ায় বলা হয়েছে, নিরামিষ ডায়েটে বাচ্চাদের বড় করে তুললে ন্যূনতম একবছরের জেল হতে পারে। এবং সর্বোচ্চ চার বছরের জেল হতে পারে। যদি ডায়েটের কারণে সাত বছর পর্যন্ত শিশুর স্বাস্থ্য সংক্রান্ত কোনও সমস্যা হয়। ঘটনা হল, ইতালিতে গত দেড়বছরে অপুষ্টিতে ভোগা শিশুদের একটি তালিকা তৈরি হয়েছে। এবং যত দিন যাচ্ছে সেই তালিকা দীর্ঘ হচ্ছে। হাসপাতালে ভর্তি করতে হচ্ছে শিশুদের শুধুমাত্র পুষ্টির কারণে। সেই বিষয়েই খতিয়ে দেখতে গিয়ে বেরিয়ে এসেছে নিরামিষ ডায়েটের কথা। নিরামিষ ডায়েটে অভ্যস্ত বাচ্চারাই বেশি করে অপুষ্টির শিকার হয়েছে একথা জানতে পেরেই এমন আইন বলবৎ করার চেষ্টা চলছে।  -সূত্র: অনইন্ডিয়া

Follow Facebook

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন: