ফ্রান্সে ইউরো ফুটবলে ত্রিমুখী সংঘর্ষ

55

ফ্রান্সে ফুটবল সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে কয়েকজন ব্রিটিশ নাগরিক আহত হয়েছেন। তাদের হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। গত তিন দিন ধরেই দক্ষিণ ফ্রান্সের বন্দরনগরী মার্সেইয়ে ইংল্যান্ড ফুটবল দলের সমর্থক, অন্যান্য দল এবং পুলিশের মধ্যে থেমে থেমে ত্রিমুখী সংঘর্ষ চলছে।

ফ্রান্সে নিযুক্ত ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত ইংল্যান্ডের কয়েক সমর্থক আহত হওয়া এবং তাদের হাসপাতালে নেয়ার খবর নিশ্চিত করেছেন। এর আগে ফ্রান্সের পুলিশ জানায়, কয়েকজন ব্রিটিশ নাগরিক গুরুতর আহত হয়েছেন।

ফ্রান্সে চলমান ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপে ইংল্যান্ড ও রাশিয়ার মধ্যে ১-১ গোলে ড্র হয়। ওই ফুটবল খেলা শেষে গ্যালারিতে ইংল্যান্ড ও রাশিয়ার সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ ছড়িয়ে পড়ে।

প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে বিবিসি জানায়, ঘটনার শুরু হয় খেলার শেষ মুহূর্তে। রাশিয়ার এক সমর্থক ফ্লেয়ার জ্বালান। এর পরপর দুই দলের সমর্থকদের বিভেদকারী প্রতিবন্ধকতা বেয়ে উঠতে থাকেন কয়েক সমর্থক। ওই ঘটনার পর পরই ইংল্যান্ডের কয়েক সমর্থক ভয় পেয়ে নিরাপত্তা বন্ধনী পার হয়ে যান।

বিবিসির স্পোর্টস এডিটর ড্যান রোয়ান এক টুইটার বার্তায় বলেন, “বিস্ফোরণের কারণে সমর্থকদের মধ্যে হুড়োহুড়ি দেখা যায়। নিরাপত্তাবলয় ফাঁকি দিয়ে কীভাবে মাঠের মধ্যে ফ্লেয়ার ঢুকে পড়ল।”

ফ্রান্সে নিযুক্ত ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত জুলিয়ান কিং এক টুইটার বার্তায় বলেন, “ইংল্যান্ডের কয়েক সমর্থককে হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। ফ্রান্সের কর্মকর্তাদের সঙ্গে বিষয়টি নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে।”

এর আগে স্থানীয় সময় শনিবার ফ্রান্সের পুলিশ জানায়, সংঘর্ষে গুরুতর আহত এক ফুটবল সমর্থককে উদ্ধার করেছে পুলিশ। তাকে হাসপাতালে নেয়া হয়েছে।

জানা গেছে, সংঘর্ষকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে টিয়ার গ্যাসের শেল এবং জলকামান থেকে পানি নিক্ষেপ করা হয়। এদিকে উত্তর আয়ারল্যান্ড ও পোল্যান্ডের ফুটবল ম্যাচ ঘিরে দুই দেশের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। এতে অন্তত ছয়জন আহত হয়েছেন

শেয়ার করুন :
Follow Facebook

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন:

Loading Facebook Comments ...